1. sm.khakon@gmail.com : admin :
  2. rayhansumon2019@gmail.com : rayhan sumon : rayhan sumon
মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪, ০২:০৮ পূর্বাহ্ন

জাতীয় সংসদ নির্বাচন হবিগঞ্জ-২ : অভিজ্ঞের সঙ্গে নবীনের লড়াই

বিশেষ প্রতিনিধি
  • মঙ্গলবার, ১৯ ডিসেম্বর, ২০২৩
  • ২৬১ বার পড়া হয়েছে

দলীয় ও স্বতন্ত্র প্রতীক পেয়েই প্রার্থীরা ছুটছেন। সঙ্গে কর্মী-সমর্থকরা। লক্ষ্য ভোটারের কাছে যাওয়া। তাদের মন জয় করা। ধনী, গরিব, দিনমজুর, শ্রমিক-সবাইকে বুকে জড়িয়ে ধরছেন। তীব্র শীত উপেক্ষা করে কাকডাকা ভোর থেকে গভীর রাত পর্যন্ত চলছে তাদের তৎপরতা।

ভোটের প্রচার-প্রচারণায় সরগরম হয়ে উঠেছে হবিগঞ্জ-২ বানিয়াচং আজমিরীগঞ্জ আসন। চা-য়ের দোকান থেকে শুরু করে সর্বত্র আলোচনা কে হচ্ছেন এই আসনের কর্ণধার বর্তমান এমপি মজিদ খান নাকি তরুণদের আইকন রুয়েল ?

সূত্র জানায়, আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থী অ্যাডভোকেট ময়েজ উদ্দিন শরীফ রুয়েল ( নৌকা) ও স্বতন্ত্র প্রার্থী আলহাজ¦ অ্যাডভোকেট আব্দুল মজিদ খান এমপি (ঈগল) প্রতীক নিয়ে জোরেশোরে প্রচার-প্রচারণায় মূলত এই দুই জন প্রার্থীকে ঘিরে জমজমাট হয়ে উঠেছে ভোটের মাঠ। তবে এদের বাইরে অন্যদলের প্রার্থীরা থাকলেও দৃশ্যত তাদের কোনো তৎপরতা নেই।

আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দলীয় মনোনয়নে বড় ধরনের পরিবর্তন এনেছে আওয়ামী লীগ। কৌশলেও এসেছে নতুনত্ব। এবার প্রতিটি আসনে নৌকার প্রার্থীর পাশাপাশি বিকল্প প্রার্থী রাখা হয়েছে। তারা নির্বাচন করবেন স্বতন্ত্র হিসেবে। তাদের উৎসাহ ও সহযোগিতা করতে ক্ষমতাসীন দলের মনোনীত প্রার্থীদের নির্দেশনাও দেওয়া হয়েছে। যার ফলে দেশজুড়ে মনোনয়নবঞ্চিত আওয়ামী লীগ নেতাদের ‘স্বতন্ত্র’ প্রার্থী হওয়ার ধুম পড়ে যায়।

এবারের নির্বাচনে বেশিরভাগ আসনে কার্যত আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থীর সঙ্গে প্রতিদ্ব›িদ্বতা হবে আওয়ামী লীগেরই বিকল্প প্রার্থীর। এই অবস্থায় হবিগঞ্জ-২ বানিয়াচং আজমিরীগঞ্জ আসনে এবার মূল লড়াইটা হবে অভিজ্ঞের আর নবীনে মধ্যে। এই আসনে আওয়ামী লীগের দলীয় প্রতীক নৌকা পেয়ে নির্বাচনে রয়েছেন জেলা আওয়ামী লীগের আইনবিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট ময়েজ উদ্দিন শরীফ রুয়েল।

অন্যদিকে ওই আসনের তিনবারের সংসদ সদস্য জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক বর্তমান এমপি আলহাজ¦ অ্যাডভোকেট আব্দুল মজিদ খান দলীয় টিকেট না পেয়ে কেন্দ্রের ঘোষণা অনুযায়ী স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে ঈগল প্রতীক নিয়ে মাঠে রয়েছেন। এদিকে দুই জন প্রার্থীর ই একে অপরের চেয়ে বয়সে বিস্তর ফাঁরাক। তাই দুই উপজেলাবাসী মূল লড়াইটা অভিজ্ঞ সম্পন্ন মজিদ খান ও নবীন প্রার্থী রুয়ের এর মধ্যেই হবে বলে এমনটা জানিয়েছেন ভোটারসহ বিশ্লেষকরা।

এ অবস্থায় ভোট নিজেদের দিকে টানতে পুরো নির্বাচনী আসন চষে বেড়াচ্ছেন নৌকার প্রার্থী অ্যাডভোকেট ময়েজ উদ্দিন শরীফ রুয়েল আর স্বতন্ত্র প্রার্থী আলহাজ¦ অ্যাডভোকেট আব্দুল মজিদ খান এমপি। তারা প্রতিদিনই বিভিন্ন গ্রাম থেকে গ্রামে হাটবাজারে নিজেদের লোক নিয়ে দিনরাত চালিয়ে যাচ্ছেন প্রচার-প্রচারণা।

সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে বর্তমানে তরুণদের কাছে বেশ জনপ্রিয় নৌকার প্রার্থী রুয়েল। বিগত করোনাকালীন সময়ে তার নিজস্ব অর্থায়নে দুই উপজেলাবাসীর মধ্যে সাধ্যমতো সাহায্য-সহায়তা করেছেন। পাশাপাশি তার নিজের পক্ষ থেকে গৃহহীনদের জন্য ঘর নির্মাণ, আর্থিক সহায়তাসহ সামাজিক কর্মকান্ড করেছেন তিনি। বিভিন্ন সভা/সেমিনারের মাধ্যমে হাট-বাজারেও সরকারের উন্নয়নচিত্র তুলে ধরে গণসংযোগ করে যাচ্ছেন অবিরত।

দলীয় নেতাকর্মীদের নিয়ে দুই উপজেলার মাঠে ময়দানে চষে বেড়াচ্ছেন হবিগঞ্জ-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য মরহুম শরীফ উদ্দিন আহমেদ এর পুত্র ও ছাত্রলীগের সাবেক আইনবিষয়ক সম্পাদক, বর্তমানে জেলা আওয়ামী লীগের আইনবিষয়ক সম্পাদক হবিগঞ্জ-২ আসনের আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থী অ্যাডভোকেট ময়েজ উদ্দিন শরীফ রুয়েল।

অন্যদিকে হেভিওয়েট প্রার্থী হিসেবে তিনবারের সংসদ সদস্য আলহাজ¦ অ্যাডভোকেট আব্দুল মজিদ খান বিগত পনের বছরে দুই উপজেলায় অভুতপূর্ব উন্নয়ন সাধন করেছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সহযোগিতায় এমপি আবদুল মজিদ খান বানিয়াচং ও আজমিরীগঞ্জ উপজেলাকে বদলে দিয়েছেন। দুই উপজেলাকে উন্নত করেছেন উন্নয়নের মডেল হিসেবে।

টানা তিনবার আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেয়ে হবিগঞ্জ-২ বানিয়াচং আজমিরীগঞ্জ থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হত মজিদ খান। নির্বাচিত হয়েই বানিয়াচং আজমিরীগঞ্জের সার্বিক উন্নয়নে মনোনিবেশ করেন। চির অবহেলিত এই ভাটির জনপদের রাস্তা-ঘাট, ব্রীজ-কালভার্ট যোগাযোগ, শিক্ষা স্বাস্থ্য, বিদ্যুতায়নসহ জনগণের মৌলিক অধিকারের প্রত্যেকটি ক্ষেত্রে পিছিয়ে থাকা এলাকাকে উন্নয়নের দিকে এগিয়ে নেওয়ার সর্বাত্মক চেষ্টা শুরু করেন। ফলে এক সময়ের অবহেলিত এলাকা আজ উন্নয়নের রোড মডেল। যোগাযোগ, শিক্ষা, স্বাস্থ্য, কৃষি, বিদ্যুতায়নসহ সর্বক্ষেত্রে এনেছেন বৈপ্লবিক পরিবর্তন।

বানিয়াচং সদরসহ দুটি উপজেলার ২০টি ইউপিতে বহু ছোট-বড় সড়ক নির্মাণ করেছেন তিনি। যোগাযোগ ব্যবস্থা উন্নত হওয়ায় ব্যবসা-বাণিজ্যে যেমন গতি এসেছে, তেমনি আর্থ সামাজিক অবস্থারও পরিবর্তন এসেছে এসব নির্মাণের কারণে।

বানিয়াচং-আজমিরীগঞ্জ উপজেলার শিক্ষার ব্যাপক প্রসার ঘটেছে। স্কুল-কলেজ সরকারি হওয়ায় শিক্ষার্থীদের হবিগঞ্জ-সিলেট শহরমুখী হওয়ার প্রবণতা কমেছে। ১৭টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভূক্ত করেছেন। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ১৪০টি নতুন ভবন নির্মাণ, দুটি কলেজ ও একটি মাধ্যমিক স্কুলসহ দুটি উপজেলায় ৬৮টি বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সরকারী হয়েছে।

১৩টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ডিজিটাল ল্যাব স্থাপন ও ৬টি নতুন প্রাইমারী স্কুল স্থাপন করা হয়েছে। সুফিয়া মতিন মহিলা কলেজ ও শচীন্দ্র ডিগ্রি কলেজে অনার্স চালু হয়েছে। বানিয়াচং ৩১ শয্যার হাসপাতালকে ৫০ শয্যায় উন্নীত করা হয়েছে। ৩৯টি কমিউনিটি ক্লিনিক স্থাপনসহ ৮টি ইউনিয়নে স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কল্যাণ স্থাপিত করেছেন।

কৃষির উন্নয়নে ৯৩ কোটি ব্যয়ে মকার হাওর উন্নয়ন প্রকল্পের কাজ চলছে। উন্নয়নের ফিরিস্তি নিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী আলহাজ¦ অ্যাডভোকেট আব্দুল মজিদ খান এমপি সমানতালে ভোটারদের কাছে যাচ্ছেন।

এই আসনে অন্যান্যরা দলের প্রার্থীরা হলেন, জাতীয় পার্টির শংকর পাল (লাঙ্গল),কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের অ্যাডভোকেট মনমোহন দেবনাথ (গামছা),ইসমলামী ঐক্যজোটের শেখ হিফজুর রহমান (মিনার), তৃনমূল বিএনপির খায়রুল আলম (সোনালী আঁশ), বিএনএম’র এস এ এম সোহাগ (নোঙ্গর), ইসলামী ফ্রন্ট বাংলাদেশের মোহম্মদ আব্দুল হামিদ ( চেয়ার) ও বাংলাদেশ কংগ্রেস এর প্রার্থী মো: জিয়াউর রশীদ (ডাব)। আগামী বছরের ৭ জানুয়ারি (রবিবার) দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

উল্লেখ্য, একটি পৌরসভা ও ২০ ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত হবিগঞ্জ-২ নির্বাচনী আসন। এই আসনে মোট ভোটার রয়েছে ৩ লাখ ৬২ হাজার ৭৩ জন। এর মধ্যে বানিয়াচং উপজেলায় ২ লাখ ৫৯ হাজার ২২ ভোট। আজমিরীগঞ্জে ১ লাখ ৩ হাজার ৫৩ জন ভোটার রয়েছে।

সামাজিক মিডিয়ায় শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর
বানিয়াচং মিরর  © ২০২৩, সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত।
Developer By Zorex Zira

Designed by: Sylhet Host BD