1. sm.khakon@gmail.com : admin :
  2. rayhansumon2019@gmail.com : rayhan sumon : rayhan sumon
রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ০১:২৮ অপরাহ্ন

বিশ্বকাপ ক্রিকেট ২০২৩ এনালাইসিস : ম্যাচ নং-২২ বাংলাদেশ বনাম দক্ষিণ আফ্রিকা

সৈয়দ সুহেল রানা
  • বুধবার, ২৫ অক্টোবর, ২০২৩
  • ৭১ বার পড়া হয়েছে

মাহমুদউল্লাহ’র শতক,বাংলাদেশকে ১৪৯ রানে হারিয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা।। মঙ্গলবার (২৪ অক্টোবর) ভারতের মুম্বাইয়ের বিখ্যাত ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে বাংলাদেশকে হেসে খেলে ১৪৯ রানের বড় ব্যবধানে হারিয়ে সেমিফাইনালের আরও কাছে আফ্রিকা!

আগে ব্যাট করে কুইন্টন ডি কক, হেনরি ক্লেসেন ও এইডেন মার্করামের ব্যাটিং তাণ্ডবে ৩৮২ রানের পাহাড় গড়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা। ওয়ানডে ক্রিকেটে বাংলাদেশের বিপক্ষে প্রোটিয়াদের এটাই দলীয় সর্বোচ্চ স্কোর।

এর আগে ২০১৭ সালে ইস্ট লন্ডনে বাংলাদেশের বিপক্ষে ওয়ানডেতে ৬ উইকেটে সর্বোচ্চ ৩৬৯ রান করেছিল দক্ষিণ আফ্রিকা।

মঙ্গলবার টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে ৩৬ রানে ২ উইকেট হারায় দক্ষিণ আফ্রিকা। তৃতীয় উইকেটে এইডেন মার্করামের সঙ্গে ১৩৭ বলে ১৩১ রানের জুটি গড়ে ওপেনার কুইন্টন ডি কক। ৬৯ বলে ৭টি বাউন্ডারির সাহায্যে ৬০ রান করে ফেরে অধিনায়ক মার্করাম।

এরপর চতুর্থ উইকেটে হেনরি ক্লেসের সঙ্গে রীতিমতো তাণ্ডব চালায় ডি কক। এই জুটিতে তারা মাত্র ৮৭ বল মোকাবেলা করে ১৪২ রানের জুটি গড়ে।

ইনিংস ওপেন করতে নেমে ৪৫.১ ওভারে দলীয় ৩০৯ রানে চতুর্থ ব্যাটসম্যান হিসেবে আউট হয় ডি কক। তার আগে চলতি বিশ্বকাপে নিজের পঞ্চম ম্যাচে তৃতীয় সেঞ্চুরি হাঁকায়।

হাসান মাহমুদের শিকারে পরিণত হওয়ার আগে ১৪০ বলে ১৫টি চার আর ৭টি ছক্কার সাহায্যে ১৭৪ রানের ঝলমলে ইনিংস খেলে ডি কক। ডি কক আউট হওয়ার পর ব্যাটিং তাণ্ডব অব্যাহত রাখে বিস্ফোরক আফ্রিকান ব্যাটার হেনরি ক্লেসেন ও ডেভিড মিলার। পঞ্চম উইকেটে মাত্র ২৫ বলে ৬৫ রানের জুটি গড়ে তারা।

একের পর এক বাউন্ডারি হাঁকিয়ে সেঞ্চুরির পথেই ছিলো হেনরি ক্লেসেন। নার্ভাস নাইনটিতে আউট হওয়ার আগে ৪৯ বলে দুটি চার আর ৯টি ছক্কার সাহায্যে খেলে ৯০ রানের অসাধারণ ইনিংস।ডেভিড মিলার ১৫ বলে ৩৪ রান করে।

বাংলাদেশ দলের হয়ে হাসান মাহমুদ ২টি, সাকিব,শরিফুল ও মিরাজ ১টি করে উইকেট পায়। মিরাজ নাসুম ছাড়া বাকি প্রায় সব বোলারই ছিলো খরুচে।

৩৮৩ রানের টার্গেট তাড়ায় ৮১ রানে ৬ উইকেট হারিয়ে ম্যাচ থেকে কার্যত ছিটকে যায় বাংলাদেশ। দল যখন পরাজয়ের প্রহর গুনছে তখন জ্বরে ওঠেন সাবেক অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতার দিনে একাই লড়াই করে সাবেক এই অধিনায়ক।

প্রোটিয়াদের বিপক্ষে আসা-যাওয়ার মিছিলে অংশ নেয় তানজিদ তামিম, নাজমুল শান্ত, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, লিটন দাস ও মেহেদি মিরাজ।

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে জিততে হলে ভাঙতে হবে রেকর্ড। ক্রিকেট বিশ্বকাপে ৩৪৫ রানের বেশি টার্গেট তাড়ায় জয়ের ইতিহাস নেই। চলতি বিশ্বকাপে শ্রীলংকার বিপক্ষে এমন নজির গড়ে পাকিস্তান।

আজ দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে জিততে হলে পাকিস্তানের সেই রেকর্ড ভাঙতে হবে টাইগারদের। ৩৮৩ রানের পাহাড় ডিঙ্গাতে নেমে ওপেনিংয়ে ৩০ রান করে বাংলাদেশ।

এরপর মাত্র ১ রানের ব্যবধানে হারায় ৩ উইকেট। একের পর এক সাজঘরে ফেরে ওপেনার তামিম, ওয়ানডাউনে ব্যাটিংয়ে নামা শান্ত ও অধিনায়ক সাকিব।

৩ উইকেটে বাংলাদেশের সংগ্রহ ছিল ৩১ রান। এরপর ২৭ রানের ব্যবধানে বাংলাদেশ হারায় আরও ২ উইকেট।মুশফিকুর ১৭ বলে ৮ রান আর ৪৪ বলে ২২ রানে ফেরে ওপেনার দাস। দলীয় ৮১ রানে ১৯ বলে ১১ রান করে ফেরে মেহেদি হাসান মিরাজ।

এর পর বাংলাদেশের পরাজয় একপ্রকার নিশ্চিত হলেও চলতে থাকে ওয়ান ম্যান শো! আর সেটি অব্যাহত রাখে বাংলাদেশ ক্রিকেটের সবচেয়ে অবহেলিত খেলোয়াড় জনতার দাবি মেনে যাকে বিশ্বকাপে নিতে বাধ্য হয় বাংলাদেশ সেই মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ।

৬৭ বলে অর্ধশতক পূর্ণ করার পর লেজের ব্যাটসম্যানদের নিয়ে লড়াই করে তিন অঙ্কের ম্যাজিক ফিগার স্পর্শ করে রিয়াদ।তাকে যোগ্য সঙ্গ দিয়েছে নাসুম,হাসান মাহমুদ ও মুস্তাফিজ।এতে ১০৫ বলে অসাধারণ শতক করে মাহমুদউল্লাহ।

ওয়ানডে ক্রিকেট ক্যারিয়ারের ২২৫তম ম্যাচে চতুর্থ সেঞ্চুরি হাঁকায় মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। ১০৪ বলে ১০টি চার আর ৩টি ছক্কার সাহায্যে বিশ্বকাপের বাংলাদেশের প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে ৩টি সেঞ্চুরি হাঁকায় রিয়াদ।

আফ্রিকার পক্ষে কোয়েটজা ৩টি এবং রাবাদা,উইলিয়ামস ও ইয়ানসেন ২টি করে উইকেট লাভ করে।

১৭৪ রানের ইনিংসের অনবদ্য ইনিংসের জন্য ম্যান অব দ্য ম্যাচের পুরস্কার অনুমিতভাবেই গেছে কুইন্টন ডি ককের কাছে।

সামাজিক মিডিয়ায় শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর
বানিয়াচং মিরর  © ২০২৩, সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত।
Developer By Zorex Zira

Designed by: Sylhet Host BD