1. sm.khakon@gmail.com : admin :
  2. rayhansumon2019@gmail.com : rayhan sumon : rayhan sumon
শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ১০:১৮ অপরাহ্ন

বিশ্বকাপ ক্রিকেট ২০২৩ এনালাইসিস : ম্যাচ নং-২০ দক্ষিণ আফ্রিকা বনাম ইংল্যান্ড

সৈয়দ সুহেল রানা
  • রবিবার, ২২ অক্টোবর, ২০২৩
  • ৫৮ বার পড়া হয়েছে

বিশ্বচ্যাম্পিয়ন ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ২২৯ রানের বড় জয় পেয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা। আফ্রিকার রান বন্যা ৪০০ রানের জবাবে ইংলিশরা করতে পারে মাত্র ১৭০ রান।

শনিবার (২১ অক্টোবর) দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে ভারতের মুম্বাইয়ের বিখ্যাত ওয়াংখেরে স্টেডিয়ামে টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুতেই ডি’ককের মূল্যবান উইকেট হারায় আফ্রিকা।

২ বলে ৪ রান করে ট্রপলির বলে ফেরে ডি’কক।এর পর ইংলিশ বোলারদের নিয়ে যা হলো তা ছেলে খেলা বললেও ভুল হবে!

ইংলিশ বোলারদের শাসন করে হেন্ডরিক্স (৮৫),দুসেন (৬০) ও মাকারাম (৪২)। এতে ৪ রানে ১ উইকেট থেকে মাত্র ৩৫ ওভারে ২৩৩ রান করে আফ্রিকা।

শেষ ১৫ ওভারে ইংলিশ বোলারদের অসহায় বানিয়ে স্কোর বোর্ডে তুলে আরও ১৬৬ রান। এতে দক্ষিণ আফ্রিকার সংগ্রহ দাঁড়ায় ৫০ ওভারে ৭ উইকেটে ৩৯৯ রান। ক্লাসেন ৬৭ বলে ১০৯ রানের টর্নেডো ইনিংস খেলে এবং ইয়ানসেন খেলে ৪২ বলে ৭৫ রানের ইনিংস।

ট্রপলি ৩টি,আদিল রশিদ ও এটিকসন ২টি করে উইকেট পায়। ট্রপলি ৩ উইকেট পেলেও ৮.৫ ওভারে খরচ করে ৮৮ রান।

দলটা ইংল্যান্ড বলেই হয়তো কেউ কেউ আশায় ছিলেন। ওয়ানডে ক্রিকেটকে নতুন চেহারা দেওয়া বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা হয়তো ৪০০ রান তুলে ফেলতেও পারে।

কিন্তু দক্ষিণ আফ্রিকার ৩৯৯ রান তাড়া করতে নেমে ইংল্যান্ড ম্যাচ থেকে বহুদূরে ছিটকে গেল প্রথম পানি পানের বিরতির আগেই। ১২ ওভারের মধ্যে ৬৮ রান তুলতেই যে ৬ উইকেট হাওয়া!

রান তাড়ায় ইংল্যান্ড প্রথম উইকেট হারায় তৃতীয় ওভারে, জনি বেয়ারস্টো লুঙ্গি এনগিডিকে ফ্লিক করলে ওপরে উঠে যাওয়া বল বাউন্ডারি সীমানায় ধরে রেসি ফন ডার ডুসেন।

১৮ রানে প্রথম উইকেট হারানো ইংল্যান্ড পরের বিশ রানের মধ্যে হারিয়ে ফেলে জো রুট, ডেভিড ম্যালান আর বেন স্টোকসকেও। রুটকে ডেভিড মিলার আর ম্যালানকে কুইন্টন ডি ককের ক্যাচ বানিয়ে ফেরায় মার্কো ইয়ানসেন। আর এবারের আসরে প্রথম খেলতে নামা স্টোকস কাগিসো রাবাদার বলে তাঁরই হাতে ক্যাচ দেয়।

নবম ওভারের প্রথম বলে চতুর্থ উইকেট হারালেও রান তোলার দিকে মনোযোগ দিয়েছিলো জস বাটলার ও হ্যারি ব্রুক। তবে দ্বাদশ ওভারের প্রথম বলে বাটলার আর তৃতীয় বলে ব্রুককে তুলে নেয় জেরাল্ড কোয়েৎজে।

খানিকপর ডানহাতি এ পেসার আদিল রশিদকেও তুলে নিলে ইংল্যান্ডের স্কোর পরিণত হয় ৭ উইকেটে ৮৪ রানে। নবম উইকেটে অ্যাটকিনস ও উড ৩৩ বলে ৭০ রান যোগ করলে হারের ব্যবধান কমে ইংলিশদের। চোট পাওয়া রিস টপলি ব্যাটিং না করায় ১৭০ রানে থামে ইংল্যান্ডের ইনিংস।

শেষ দিকে গাস অ্যাটকিনসন আর মার্ক উডের এলোপাতাড়ি ব্যাটিংয়ে আরও কিছু রান যোগ হয়েছে বটে। কিন্তু হারের ব্যবধানটা শেষতক বড়সড়ই। মুম্বাইয়ের ওয়াংখেড়েতে ১৭০ রানে থেমে গিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকার কাছে ২২৯ রানের বড় ব্যবধানে হেরেছে ইংল্যান্ড। আফ্রিকার পক্ষে কোয়েৎজে ৩টি এবং এনগিডি ও ইয়ানসেন ২টি উইকেট লাভ করে।

এ নিয়ে এবারের আসরে প্রথম চার ম্যাচের তিনটিতেই হেরেছে বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা। সমান ম্যাচে দক্ষিণ আফ্রিকার জয় তিনটি।

মাত্র ৬৭ বলে ১০৯ রানের অসাধারণ ইনিংসের জন্য ম্যাচের সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হয় হেনরি ক্লাসেন।

সামাজিক মিডিয়ায় শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর
বানিয়াচং মিরর  © ২০২৩, সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত।
Developer By Zorex Zira

Designed by: Sylhet Host BD